শীর্ষ শিরোনাম
Home » বিভিন্ন জেলা-উপজেলা » বিয়ানীবাজারে প্রার্থীদের টাকা বিতরণ বন্ধে গ্রামে-গ্রামে পাহারা, ব্যাংকে টাকা সঙ্কট

বিয়ানীবাজারে প্রার্থীদের টাকা বিতরণ বন্ধে গ্রামে-গ্রামে পাহারা, ব্যাংকে টাকা সঙ্কট

23006সিলেট রিপোর্ট :  শনিবার সিলেটের  বিয়ানীবাজার উপজেলার ১০টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। প্রবাসীবহুল অঞ্চল বিয়ানীবাজারে নির্বাচন উপলক্ষে কালো টাকার ছড়াছড়ি চলছে বলে অভিযোগ উঠেছে। প্রার্থীরা টাকা দিয়ে ভোট কেনার চেষ্টা করছেন বলে অভিযোগ স্থানীয়দের।

নির্বাচনকে কেন্দ্র করে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীদের টাকা বিতরণ বন্ধে গ্রামে-গ্রামে পাহারা বসানো হয়েছে। নিজের ভোট ব্যাংকে এসে অন্য প্রার্থী যাতে টাকা ছড়িয়ে কোন প্রভাব বিস্তার করতে না পারে তার জন্য ‘শিফট করে’ ৪০-৫০ জনের গ্রুপ করা হয়েছে।

এদিকে নির্বাচনকে উপলক্ষ করে বৃহস্পতিবার বিয়ানীবাজারের ব্যাংকগুলোতে টাকার সঙ্কট দেখা দেয়। পৌরশহরের সরকারী-বেসরকারি প্রায় ২৫টি ব্যাংকেই এ অবস্থা ছিল। দেশ-বিদেশ থেকে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীদের স্বজনরা বিশেষ ব্যবস্থায় টাকা পাঠিয়েছেন।

ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকের ব্যবস্থাপক শফিউল্লাহ ভূঁইয়া জানান, বিকেলের দিকে তার শাখায় নগদ টাকার কিছুটা সঙ্কট দেখা দেয়।

জানা যায়, উপজেলার শালেশ্বর, উলুউরি, তিলপাড়া, বাহাদুরপুর, নয়া দুবাগ, চরিয়া, মইয়াখালি, ফুলমলিক, কাদিমলিক, চন্দগ্রাম, দুধাইর পাতন, বারইগ্রাম, আদিনাবাদ, কাকুরা, জলঢুপ, দিঘলবাক, ঢেউনগর, তাজপুর, খশির, দুধবকসি, সারোপার, তাজপুর, আভঙ্গি, মালিগ্রাম, কাছাটুল, নন্দিরফল, মাটিকাটা, আলীপুর, কোনাগ্রাম, গজুঁকাটাসহ বেশ কয়েকটি গ্রামে দলবদ্ধভাবে ছোট-ছোট ভাগ হয়ে তরুণরা পাহারা বসিয়েছে। পরিচিত-অপরিচিত কাউকে দেখলেই পাহারারত তরুণরা পরিচয় জিজ্ঞেস করে কঠোর নজরদারী করছে।

বিয়ানীবাজার এলাকায় পাহারায় নিয়োজিত ছাত্রলীগ নেতা ছাদ উদ্দিন জানান, ছাত্রলীগ-যুবলীগের নেতাকর্মীরা পাহারা দিয়ে টাকা বিতরণ বন্ধ করে রাখছে।

আলী নগর ইউনিয়নের ছাত্রলীগ নেতা জাকির আজিজ চৌধুরী জানান, বিএনপি প্রার্থী ও তাঁর পক্ষে কাজ করা অনেক প্রবাসী টাকা দিয়ে ভোট কেনার চেষ্টা করছেন। ইউনিয়নের ছাত্রলীগ-যুবলীগ কর্মীরা কালো টাকার এ দৌরাত্ম্য বন্ধ করতে সজাগ রয়েছে।

স্থানীয় নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা যায়, বিয়ানীবাজার উপজেলার ১০টি ইউনিয়নের সবক’টিতে আওয়ামীলীগ, ৯টিতে বিএনপি, ৩টিতে এরশাদের জাতীয়পার্টি, ১টিতে জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম, ১টিতে জাসদ (ইনু) প্রার্থী দিয়েছে।
টাকা বিতরণ প্রসঙ্গে বিয়ানীবাজার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মুহা. আসাদুজ্জামান বলেন, কোন প্রার্থী টাকা বিতরণের অভিযোগ করেননি। সুনির্দিষ্ট অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Share Button
Hello

এই ভিডিও প্লে করুন | video play now