শীর্ষ শিরোনাম
Home » বিজ্ঞান-প্রযুক্তি » রাগীব আলীকে নিয়ে ফেইসবুকে তোলপাড়! সুবিধা ভোগীরা গেল কোথায় ?

রাগীব আলীকে নিয়ে ফেইসবুকে তোলপাড়! সুবিধা ভোগীরা গেল কোথায় ?

qqসিলেট রিপোর্ট: বিশিষ্ট শিল্পপতি দানবীর রাগীব আলীকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে বেশ আলোচনা সমালোচনা চলছে। বিশেষ করে তারাপুর চা বাগান নিয়ে মহামান্য আদালতের রায় তার বিপক্ষে যাবার পর। রাগীব আলীকে নিয়ে অনেক বিতর্ক থাকলেও এক বিষয়ে সবাই একমত তিনি দেশের শিক্ষার উন্নয়নে অনেক অবদান রেখেছেন। শুধু সিলেটে নয় সারা দেশে তার প্রতিষ্ঠিত দুই শতাধিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান রয়েছে। এর মধ্যে আছে স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়, মেডিকেল কলেজ, মসজিদ এবং মাদ্রাসা।
এদেশে রাগীব আলীর মতো আরো অনেক শিল্পপতি আছেন, এদের অনেকেই দুর্নীতির সাথে জড়িত । এরা দেশের শেয়ার বাজার লুট এবং গরীব মানুষের কোটি কোটি টাকা বিদেশে পাচার ও আত্মসাত করছে। দুদক এদের বিরুদ্ধে মামলা পরিচালনা করছে।
এই সব শিল্পপতিরা দেশের সাধারণ মানুষের জন্য একটা প্রাইমারী স্কুলও করতে দেখা যায়না।
w2সাহিত্য কর্মী ও প্রকাশক বায়জিদ মাহমুদ ফয়সল তার ফেইসবুক স্টেটাসে লিখেছেন-
‘সিলেটে গত দুই দশক থেকে এই অঞ্চলের অধিকাংশ কবি সাহিত্যিক সাংবাদিক শিক্ষাবিদ,বুদ্ধজিীবি, চাকরিজীবী পেশাজিবি, রাজনীতিবিদ মুক্তিযোদ্ধা সহ অনেক সম্ভ্রান্ত পরিবারের সদস্যদের রাগীব আলীর দরবারে তাঁর করুণা লাভের জন্য দিনের পর দিন, ঘণ্টার পর ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থাকতে দেখেছি ।

রাগীব আলীর অনুগ্রহ লাভের জন্য বিগত দিনে সিলেটে সরকার দল ও বিরোধী দলের প্রথম সারির নেতারা নাগরিক কমিটি গঠন করে সিলেট সরকারি আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে তাঁকে নাগরিক সংবর্ধনা দিতে দেখলাম। অনেকে লেখক পদক পাওয়ার জন্য, কেউ চাকুরীর জন্য, কেউ নগদ অনুদানের জন্য কেউ অন্যান্য জাগতিক ফায়দা হাসিলের জন্য তাঁর দরবারে নানা ধরণের ভঙ্গিবাজির আশ্রয় নিতে দেখলাম।

বর্তমানে রাগীব আলী সাহেবের দুর্দিন আসতেই এইসব চাটুকার ধান্দাবাজ সুযোগ সন্ধানীরা (কবি সাহিত্যিক সাংবাদিক বুদ্ধজিবি চাকরিজীবী পেশাজিবি রাজনীতিবিদ সহ সম্ভ্রান্ত পরিবারের সদস্যরা) কোথায় পালিয়েছেন? বিপদের সময় তাদের ভূমিকা কী? রাগীব আলীর প্রতিষ্ঠানের হাজার হাজার সুবিধা ভোগী চাকরীজীবী স্কুল কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয় ব্যাংক বীমা চা বাগানের হাজার হাজার লোকেরা গেল কোথায় ? রাগীব আলীর বিপদে তাদের ভূমিকা কি? আর যাই হোক রাগীব আলী সিলেটের সম্পদকে কাজে লাগিয়ে জনসাধারণ এর উপকার করেছেন, এটা ১০০% সত্য।

মহান রাব্বুল আলামীন রাগীব আলী সাহেবকে মাফ করে দিন আর তাঁর পরিবারকে হেফাজত করুন।
তার এই স্টেটাসকে বেশিরভাগ পাঠক সমর্থন করে নানা ধরনের মন্তব্য করেছেন।

Share Button
Hello

এই ভিডিও প্লে করুন | video play now