শীর্ষ শিরোনাম
Home » সুনামগঞ্জ » জামালগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অপপ্রচারের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

জামালগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অপপ্রচারের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

সিলেট রিপোর্ট: সুনামগঞ্জের জামালগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান শামসুল আলম ঝুনু মিয়ার বিরুদ্ধে অপপ্রচার ও চক্রান্তের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে।  মঙ্গবার দুপুরে উপজেলা অডিটোরিয়ামে সচেতন নাগরিক সমাজ নামের একটি সামাজিক সংগঠন এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে।  এতে লিখিত বক্তব্য পড়েন সংগঠনের আহ্বায়ক ডা. আনোয়ার পারভেজ। সংবাদ সম্মেলনে উপজেলা চেয়ারম্যানের পক্ষে বিভিন্ন এলাকার সহশ্রাধিক নারী-পুরুষ অংশ নেন।
জামালগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান হাফিজা আক্তার দিপুর স্বামী বদিউজ্জামান জামালগঞ্জ উপজেলার ভীমখালী গরুর বাজারের খাস কালেকশন করতেন। প্রতি মাসে সরকারি কোষাগারে ৮০ হাজার টাকা জমা দিতেন তিনি। রাজস্ব আদায়ের হার কম হওয়ায় পরবর্তীতে উপজেলা পরিষদের তত্ত্বাবধানে সরাসরি বাজারটি থেকে রাজস্ব আদায়ের উদ্যোগ নেয়া হয়। এতে দুই সপ্তাহে ৪ লাখ ৩৮ হাজার টাকার রাজস্ব আদায় হয়। এতে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান উপজেলা চেয়ারম্যানের ওপর ক্ষিপ্ত হন।
অপরদিকে, গত ২৮ আগস্ট জামালগঞ্জ সদর ইউনিয়নের সংরক্ষিত নারী আসনের সদস্য শারমীন সুলতানার বিরুদ্ধে বয়স্ক, বিধাবা, প্রতিবন্ধী ও মাতৃত্বকালীণ ভাতার টাকা আত্মসাতের অভিযোগ তুলেন উপকারভোগীরা। অভিযোগের বিষয়টি জানার পর উপজেলা চেয়ারম্যান ঝুনু মিয়া  অভিযোগের সত্যতা যাচাইয়ে উদ্যোগী হন। ওই দিন সোনালী ব্যাংক জামালগঞ্জ শাখা থেকে উপকারভোগীদের টাকা উত্তোলন করে তাদের প্রাপ্য টাকার অর্ধেক বুঝিয়ে দিতে চাইলে উপকারভোগীদের তোপের মুখে পড়েন ওই নারী ইউপি সদস্য। পরে উপজেলা চেয়ারম্যানের অনুরোধে পুলিশ ও ব্যাংক কর্তৃপক্ষ তার নিকট থেকে ভাতার সব টাকা উদ্ধার করে উপকারভোগীদের বুঝিয়ে দেন। উপকারভোগী সালমা বেগম, ফেরদৌস মিয়া, নূর জাহান প্রমুখ সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত হয়ে ঘটনার সত্যতার কথা স্বীকার করেন।
সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ করা হয়, উপজেলা চেয়ারম্যান দ্বারা ওই দুই নারী জনপ্রতিনিধির স্বার্থে ব্যাঘাত ঘটলে তারা দুজন একজোট হয়ে নারী জনপ্রতিধিদের গালমন্দ করেছেন বলে মিথ্যা প্রচারণা শুরু করেন।  এসময় আরও বক্তব্য রাখেন সিরাজুল ইসলাম, রফিকুল বারী রফিক, মো. সিরাজ মিয়া, ভাইস চেয়ারম্যান রশিদ আহমদ, শাহ মো. শাহাজাহান, আব্দুস ছত্তার, আব্দুুর রাজ্জাক, মুক্তিযোদ্ধ মখলিছুর রহমান, আশরাফুজ্জামান আশরাফ, আজাদ হোসেন বাবলু প্রমুখ।  যোগাযোগ করা হলে সংবাদ সম্মেলনে আনা অভিযোগের বিষয়গুলো জামালগঞ্জ উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হাফিজা আক্তার দিপু ও নারী ইউপি সদস্য শারমিন সুলতানা অস্বীকার করেন।
Share Button
Hello

এই ভিডিও প্লে করুন | video play now