শীর্ষ শিরোনাম
Home » ধর্ম » ব্লগার অভিজিৎ রায়’র খুনের অজুহাতে বিশেষ মহলের ইসলাম অবমাননা ! প্রিন্সিপাল হাবীবের প্রতিবাদ

ব্লগার অভিজিৎ রায়’র খুনের অজুহাতে বিশেষ মহলের ইসলাম অবমাননা ! প্রিন্সিপাল হাবীবের প্রতিবাদ

সিলেটরিপোর্ট: ব্লগার অভিজিৎ রায়’র খুনের অজুহাত দিয়ে ধর্ম অবমাননা গণহারে ছড়িয়ে দিচ্ছে একটি মহল। কেউ ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে কেউ মিছিল মিটিংয়ে বক্তৃতার মাধ্যম্যে ব্লগার অভিজিতের খুনের ঘটনায় নিজের অজান্তেই পবিত্র ইসলামের বিরুদ্ধে কথা বলতে শুরুকরেছেন এমন অভিযোগ পাওয়াগেছে।
জানাগেছে, বুটেক্সের ছাত্র ইউনিয়ন সভাপতি ফারুক সাদিক তার ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়েছে “শপথ করে বলছি, মৃত্যুর আগ পর্যন্ত লাগাতার তোদের ধর্মকে আক্রমণ করবো, মুসলিমের বাচ্চারা। অভিজিৎ রায়ের রক্তের শপথ।” এছাড়াও অভিজিৎ রায়ের ফেসবুক আইডির পোস্টের কমেন্টে ইসলামের বিরুদ্ধে ভয়াবহ গালিগালাজ করা হচ্ছে। বিশেষ করে বাম আন্দোলনের সাথে সম্পৃক্ত ব্যক্তিদের ইসলামকে কটূক্তি করতে দেখা যাচ্ছে ফেসবুকে। অপর দিকে অভিজিৎ রায়কে কুপিয়ে হত্যার প্রতিবাদে সিলেটে অনুষ্ঠিতব্য একটি বিক্ষোভ মিছিল – সমাবেশ থেকে ইসলাম ধর্মের বিরুদ্ধে বক্তব্য রাখা এবং বিভিন্ন প্লেকার্ডে ইসলমামকে কটাক্ষ করে ব্যানার ফেষ্টুন হাতে মিছিলকারীদের দেখা যায়।
এদিকে, ব্লগার অভিজিৎ রায়কে কুপিয়ে হত্যার প্রতিবাদে সিলেটে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে ব্লগার ও অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম, সিলেট। ২৭ ফেব্রুয়ারী শুক্রবার বিকেলে নগরীর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে শুরু হয়ে মিছিলটি কোর্ট পয়েন্ট ঘুরে আবার শহীদ মিনার চত্বরে এসে প্রতিবাদ সমাবেশে মিলিত হয়। সমাবেশে বক্তারা বলেন, উগ্র সাম্প্রদায়িক গোষ্টি যে কায়দায় হুমায়ুন আজাদকে হত্যা করেছিলো সেই একই কায়দায় মুক্তমনা লেখক অভিজিৎ রায়কে হত্যা করা হয়েছে। ধর্মীয় মৌলবাদীরা একের পর এক লেখক, প্রতিশীল মানুষদের হত্যা করে কবাংলাদেশকে পাকিস্তানের মতোই একটি জঙ্গি ও সাম্প্রদায়িক রাষ্ট্রে পরিণত করতে চায়। বক্তারা অভিজিৎ রায় হত্যার বিচার দাবি করে বলেন, লেখককে হত্যা করে তার আদর্শকে হত্যা করা যাবে না।অভিজিৎ রায়ের আদর্শও কখনো লুপ্ত হবে না। সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সম্মিলিত নাট্য পরিষদ, সিলেটের সাধারণ সম্পাদক রজতকান্তি গুপ্ত, অনলাইন এক্টিভিস্ট একুশ তাপাদার, প্রগতিশীল ছাত্রনেতা প্রণব পাল, সহিদুজ্জামান পাপলু, রাশেদ আহমদ প্রমুখ।

প্রিন্সিপাল মাওলানা হাবীবুর রহমানের প্রতিবাদ
বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের আমীর, জামেয়া মাদানিয়া ইসলামিয়া কাজির বাজার এর প্রিন্সিপাল মাওলানা হাবীবুর রহমান শনিবার এক বিবৃতিতে বিতর্কিত লেখক ব্লগার অভিজিত রায়ের হত্যা কান্ডের তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন। বিবৃতিতে তিনি বলেন, ইসলাম শান্তির ধর্ম, কোন মানুষের জান মালে আঘাত ইসলাম সমর্থন করেনা। কোন সত্যিকার মুসলমান এরূপ হত্যাকান্ডে জড়িত থাকতে পারেনা- অত্যান্ত দুঃখের বিষয় কতিপয় ইসলাম বিদ্বেষী ব্যক্তি এ হত্যাকান্ডকে কেন্দ্র করে ইসলাম ও ইসলামী শক্তির বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র শুরু
করেছে। এরই ধারাবাহিকতায় গণ জাগরণ মঞ্চের একটি গ্র“প সিলেট ব্লগার ও অনলাইন এ্যাক্টিভিস্ট ফোরামের ব্যানারে অভিজিত হত্যার প্রতিবাদে মিছিল করেছে তাতে আমাদের কোন আপত্তি নেই। কিন্ত মিছিলে ইসলাম বিরুধী বিভিন্ন ব্যানার ও ফেষ্টুন ব্যবহার করে ধর্মপ্রাণ জনতার হৃদয়ে আঘাত হেনেছে। মিছিলের ব্যানারে ইসলামকে সন্ত্রাসের ধর্ম আখ্যায়িত করার ধৃষ্টতা দেখানো হয়েছে। প্রশাসনের নাকের ডগায় এ ধরনের ইসলাম বিরুধী মিছিল একজন সাধারণ মুসলমান ও তা বরদাশত করতে পারেনা।
বিবৃতিতে প্রিন্সিপাল হাবীব বলেন- এদেশের
ধর্মপ্রান জনতা দেশের শান্তি শৃঙ্খলা রক্ষায়
বদ্ধপরিকর তাই বলে আধ্যাতিক রাজধানী খ্যাত সিলেট নগরীতে প্রকাশ্যে ইসলামের উপর আঘাত করা হবে আর তৌহিদী জনতা ঘরে বসে থাকবে তা কখনো হতে পারেনা।
ধর্মপ্রাণ জনতার গণবিস্ফোরণের পূর্বেই এসব
চিহ্নিত ইসলাম বিদ্ধেষীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দিতে হবে। অন্যতায় যে কোন পরিস্থিতির জন্য প্রশাসন দায়ী থাকবে।
বিবৃতিতে ইসলাম বিরুধী যে কোন মিছিল ধর্মপ্রাণ জনতা প্রতিহত করব্ উল্লেখ করে বলেন, রাজনৈতিক দৃষ্টিতে নয়, ঈমানী চেতনায় উজ্বিবিত হয়ে দলমত নির্বিশেষে সকল মুসলমানগণ এদের প্রতিহত করতে এগিয়ে আসতে হবে।

Share Button
Hello

এই ভিডিও প্লে করুন | video play now