শীর্ষ শিরোনাম
Home » জাতীয় » এবার সর্বনিম্ন ফিতরা ৬০ টাকা

এবার সর্বনিম্ন ফিতরা ৬০ টাকা

fitraডেস্ক রিপোর্ট: এবারের ঈদুল ফিতরে জনপ্রতি ফিতরা সর্বনিম্ন ৬০ টাকা এবং সর্বোচ্চ ১ হাজার ৬৫০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। স্থানীয় পণ্য আটা, খেজুর, কিসমিস, পনির ও যবের বর্তমান বাজার মূল্যের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে এই ফিতরা নির্ধারণ করা হয়।

বুধবার জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমের দোতলায় ইসলামিক ফাউন্ডেশন সভাকক্ষে ‘সাদকাতুল ফিতর’ নির্ধারণের জন্য অনুষ্ঠিত জাতীয় ফিতরা নির্ধারণ কমিটির সভায় ফিতরা নির্ধারিত হয়।

সভায় সভাপতিত্ব করেন করেন ইসলামিক ফাউন্ডেশনের দ্বীনি দাওয়া বিভাগের পরিচালক এ এম এম সিরাজুল ইসলাম। উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ইমাম সমিতির যুগ্ম মহাসচিব মুফতি শাইখ ওসমান, বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের সিনিয়র পেশ ইমাম মুফতি মিজানুর রহমান, পেশ ইমাম মহিবুল্লাহ আল বাকী, ঢাকা আলিয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজউদ্দিন আহমেদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. আব্দুল্লাহ আল মারুফ প্রমুখ।

সভায় সিদ্ধান্ত গৃহীত হয় যে, ইসলামী শরীয়াহ মতে আটা, খেজুর, কিসমিস, পনির ও যব ইত্যাদি পণ্যগুলোর যে কোনো একটির মাধ্যমে ফিতরা প্রদান করা যায়। আটার মাধ্যমে ফিতরা আদায় করলে জনপ্রতি ১ কেজি ৬৫০ গ্রাম বা এর বাজার মূল্যে ৬০ টাকা আদায় করতে হবে।

খেজুরের মাধ্যমে আদায় করলে ৩ কেজি ৩০০ গ্রাম বা এর বাজার মূল্যে ১ হাজার ৬৫০ টাকা, কিসমিসের মাধ্যমে আদায় করলে ৩ কেজি ৩০০ গ্রাম বা এর বাজার মূল্যে ১ হাজার ২০০ টাকা, পনির দিয়ে আদায় করলে ৩ কেজি ৩০০ গ্রাম বা এর বাজার মূল্যে ১ হাজার ৬০০ টাকা এবং যব দিয়ে আদায় করলে ৩ কেজি ৩০০ গ্রাম বা এর বাজার মূল্য ২০০ টাকা আদায় করতে হবে।

মুসলমানরা নিজেদের সামর্থ্য অনুযায়ী সাদকাতুল ফিতরা আদায় করবেন। ঈদুল ফিতরের নামাজের অব্যবহিত আগে প্রতিটি মুসলমানের জন্য ফিতরা আদায় করা ওয়াজিব।

নাবালক ছেলে-মেয়ের পক্ষ থেকে বাবাকে এ ফিতরা দিতে হয়। আর তা দিতে হয় ঈদুল ফিতরের নামাজের আগেই।

Share Button
Hello

এই ভিডিও প্লে করুন | video play now